জামালগঞ্জের ওসি বালাগঞ্জের সাইফুল আলমের দৃষ্টান্ত

প্রকাশিত: ১০:৫৩ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২২, ২০২০

জামালগঞ্জের ওসি বালাগঞ্জের সাইফুল আলমের দৃষ্টান্ত

লন্ডন বাংলা ডেস্কঃঃ
তৎকালীন সময়ের ২য় ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টের `সি’ কোম্পানির ভারপ্রাপ্ত ৩নং সেক্টরের কমান্ডার, মুক্তিযুদ্ধের বিশিষ্ট সংগঠক, বালাগঞ্জ আওয়ামী লীগের প্রতিষ্টাতা সেক্রেটারি মোহাম্মদ আলকাছ মিয়া’র দৌহিত্র, উপজেলা সদরের রাধাকোনা গ্রামের সাবেক মেম্বার আব্দুল্লাহ মিয়া’র চতুর্থ পুত্র ও বালাগঞ্জ বাজারের বিশিষ্ট সমাজসেবক নুর উদ্দিন পুতুল ও বালাগঞ্জ সরকারি ডিএন উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক নুরুল আমিন এর ছোট ভাই বালাগেঞ্জের সাইফুল আলম।

 

 

জামালগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সাইফুল আলম নিরলস ভাবে নিজের বেতনের টাকা দিয়ে রাতের আঁধারে খেটে খাওয়া দিনমজুর, অসহায় পরিবারের বাড়ি বাড়ি গিয়ে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন। করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) বিশ্বে এক ভয়ংকর মহামারি সংক্রমণের নাম। যা সারা পৃথিবীর মানুষকে উৎকন্ঠায় ফেলে দিয়েছে। পৃথিবীর সকল উন্নয়নের চাকা বন্ধ হয়ে গেছে। পাশাপাশি শুরু হয়েছে মানুষ বেঁচে থাকার লড়াই।

 

পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের ন্যায় আজ করোনা সংক্রমনে আক্রান্ত হয়েছে বাংলাদেশও। দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে মানুষ যখন দিশেহারা ঠিক এই মুহুর্তে মানুষকে সুরক্ষিত ও সচেতনতা সহ হোম কোয়ারান্টিন রাখতে সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাচ্ছে জামালগঞ্জ পুলিশ প্রশাসন। তারই ধারাবাহিকতায় জাতির এই ক্রান্তিলগ্নে জামালগঞ্জের পুলিশের ভুমিকা উপজেলায় মানব সেবায় নজির হয়ে থাকবে।সংবাদকর্মী, স্বচক্ষে দেখেছি জীবনের মায়া ত্যাগ করে পরিবার পরিজনকে বাসায় রেখে প্রতিদিনই পুলিশ প্রশাসন প্রতিটি হাটবাজারসহ বিভিন্ন গ্রামে গ্রামে মানুষকে ঘরমুখি করতে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

 

 

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশে প্রতিটি ইউনিয়নে বিদেশ ফেরত ও বর্তমানে ঢাকা,নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী থেকে আসা লোকজনের বাড়ি বাড়ি গিয়ে তালিকা তৈরী করা তাদেরকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকতে বাধ্য করাসহ প্রতিটি মসজিদে পাঁচ জনের বেশি মুসুল্লি না হওয়া এবং প্রতিটি মানুষকে সচেতন করেই দায়িত্ব শেষ করেননি। সংবাদকর্মী স্বচক্ষে অবলোকন করেন, গত ১২ এপ্রিল থেকে নিজের বেতনের টাকা দিয়ে রাতের আধারে অসহায় পরিবারের বাড়ি বাড়ি গিয়ে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন ওসি মো সাইফুল আলম।

 

উপজেলার ফেনারবাক ইউনিয়নের সাত বারের ইউপি চেয়ারম্যান করুণা সিন্ধু তালুকদার বলেন, স্বাধীনতা সংগ্রাম থেকে শুরু করে জাতীর যে কোন ক্রান্তিলগ্নে পুলিশ নিজেদের মায়া ত্যাগ করে মানুষের জন্য আত্ম নিয়োগ করেছেন ঘুর্ণিঝড় সিডর ও ৭৪ এবং ৮৮ প্রলয়ঙ্কারী বন্যায় প্রতিটি ক্ষেত্রে জীবন বাজি রেখে কাজ করে গেছেন।

 

সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা লীগের সভাপতি ও সাবেক জামালগঞ্জ উপজেলা মুক্তিযোদ্বা সংসদ কমান্ডার অ্যাডভোকেট আসাদ উল্লাহ সরকার বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ডাকে সাড়া দিয়ে রাজারবাগ পুলিশ লাইন থেকে পুলিশই প্রথম পাকিস্তানি হানাদারদের দিকে গুলি ছুড়ে, সেই যুদ্ধে অনেক পুলিশ শহীদ হন।বাংলাদেশ যতদিন রবে ততদিন তাদের নাম স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে। এই দূর্যোগে অনেকেই সহযোগিতায় এগিয়ে এসেছেন তাদের মধ্যে ওসি মো সাইফুল আলমও একজন মানবিক যেদ্ধা। তার কর্ম মানুষ মনে রাখবে অনেকদিন।

 

জামালগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো সাইফুল আলম বলেন, সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক মানুষের কল্যানে আমরা যথাসাধ্য চেষ্টা করে যাচ্ছি। আমি এই দানটুকু আল্লাহ রাব্বুল আ’লামিন কে রাজি খুশির উদ্দেশ্যে। লোকসমাগম ছাড়া বাড়ি বাড়ি গিয়ে তাদের বর্তমান প্রেক্ষাপট বুঝে নিজের সাধ্য মত নিত্যপ্রয়োজনীয় উপহার সামগ্রী দেওয়ার চেষ্টা করছি। আমি চাই সবাই যেন এগিয়ে আসে দেশের দুর্যোগ পরিস্থিতি মোকাবেলায়।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

আর্কাইভ

July 2024
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
293031