ওসমানীনগরে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে অপপ্রচার 

প্রকাশিত: ৯:২০ অপরাহ্ণ, জুন ২৫, ২০২০

ওসমানীনগরে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে অপপ্রচার 
১৩৪ Views
 
প্রতিনিধি/ওসমানীনগরঃঃ
সিলেটের ওসমানীনগরের গোয়ালাবাজার ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্যে তছন মিয়ার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়ে এলাকার উন্নয়ন কর্মকান্ডে বাঁধা প্রদানের অভিযোগ উঠেছে। মনগড়া অভিযোগ ও অপপ্রচারকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি জানিয়ে ওয়ার্ডবাসীর পক্ষে বৃহস্পতিবার ৭২ জন স্বাক্ষরিত লিখিত অভিযোগ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে প্রদান করেছেন স্থানীয়রা।
অভিযোগ সূত্র জানা যায়, উপজেলার গোয়ালাবাজার ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য তছন মিয়া নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে এলাকার উন্নয়নে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার স্বপ্নকে বাস্থবায়িত করতে গ্রাম পর্যায়ে নাগরিক সুবিধা নিশ্চিতকরণ সহ সমহারে চালিয়ে যাচ্ছেন উন্নয়ন কর্মকান্ড। করোনা ভাইরাসের সংকটময় মূহূর্থে দিন রাত প্ররিশ্রম করে মহামারি প্রতিরোধে সচেতণতা বৃদ্ধিসহ নিজ উদ্যোগে নানা কার্যক্রম চলমান রয়েছে।
বিগত চার বছরে তছন মিয়ার তত্বাবধানে ওয়ার্ডের গ্রামিন রাস্তাসহ সেনিটেশন ব্যাবস্থার অকল্পনীয় উন্নয়ন এবং সরকার কর্তৃক বরাদ্ধকৃত বয়স্ক ভাতা, বিধবা ভাতা, প্রতিবন্ধি ভাতা মাতৃত্বকালীন ভাতা, ভিজিএফ চাল সমহারে বন্টণ করে যাচ্ছেন। অভিযোগে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, নিরলস উন্নয়ন ও ওর্য়াড পর্যায়ে আসা ত্রান সামগ্রী কর্মহীন ও অসহায় মানুষের মধ্যে সমহারে বন্টন করায় ওয়ার্ডবাসীর কাছে ব্যাপক প্রশংসা খুড়িঁয়েছেন তিনি। যা দেখে একটি মহল প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে ওই ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ ও অপপ্রচার চালিয়ে সরকারের ভাবমূর্তিও ক্ষুন্ন করার অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে।
এছাড়া অভিযোগ দায়েরকারী ব্যাক্তিদের মধ্যে অনেকের নাম ইউপি সদস্য তছন মিয়ার প্রস্ততকৃত সরকারী বরাদ্ধের তালিকায় রয়েছে। অভিযোগকারীরা ওয়ার্ড পর্যায়ে আসা সরকারী বরাদ্ধ থেকে সর্বদা সরকারী বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা ভোগ করে যাচ্ছেন। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে থাকা সরকারী বরাদ্ধের তালিকা যাচাই-বাছাই করলেও বিষয়গুলোর সত্যতা নিশ্চিত হওয়া যাবে বলেও অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে।
তাই অভিযোগকারীরা ইউপি সদস্য তছন মিয়ার বিরুদ্ধে প্রেরিত অভিযোগটি মিথ্যা ও বানোয়াট উল্লেখ করে বর্তমান সরকারের ভাবমূর্তির ক্ষুন্নকারীদের বিরুদ্ধে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহব্বান জানিয়েছেন।
এ ব্যপারে ওসমানীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকতা মোছাঃ তাহমিনা আক্তার বলেন,এ সংক্রান্ত বিষয়ে অফিসে অভিযোগ দিয়ে থাকলে খোঁজ নিয়ে তদন্ত পূর্বক প্রযোজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।
Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Follow us

আর্কাইভ

April 2024
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
2930