সেপ্টেম্বরেই আসছে রাষ্ট্রায়ত্ত আরও চারটি ব্যাংক

প্রকাশিত: ৫:৩০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২০

সেপ্টেম্বরেই আসছে রাষ্ট্রায়ত্ত আরও চারটি ব্যাংক
১২৩ Views

লন্ডন বাংলা ডেস্কঃঃ

আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে তালিকাভুক্ত করা হচ্ছে রাষ্ট্রায়ত্ত আরও চারটি ব্যাংক। পুঁজিবাজারকে শক্তিশালী করতে রাষ্ট্রায়ত্ত আরও চারটি ব্যাংককে সেপ্টেম্বরের মধ্যে তালিকাভুক্ত করা হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। আজ রোববার সচিবালয়ে অর্থ মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন, বাণিজ্যিক ব্যাংক ও অংশীজনদের সঙ্গে বৈঠক শেষে অর্থমন্ত্রী এ কথা জানান।

 

মন্ত্রী বলেন, ‘বিডিবিএল, অগ্রণী, জনতা ও সর্বশেষ সোনালী ব্যাংককে বাজারে নিয়ে আসা হবে। আমরা একটি কমিটি করে দিয়েছি। কমিটিতে চারটি ব্যাংকের একজন করে থাকবেন। এটা আইসিবি কোঅর্ডিনেট করবে।তবে এর মধ্যে সোনালী ব্যাংকের ট্রেজারি পারফর্ম করে। তাই আনতে সময় লাগবে’, যোগ করেন মুস্তফা কামাল। এর মধ্যে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত রূপালী ব্যাংকের শেয়ার ১০ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ২৫ শতাংশ করা হবে বলেও জানান অর্থমন্ত্রী।

 

মুস্তফা কামাল বলেন, ‘ব্যাংকগুলির ২৫ শতাংশ শেয়ার বাজারে ছাড়া হবে, একবারে না পারলে পর্যায়ক্রমে হবে। আগে থেকে তালিকাভুক্ত রূপালী ব্যাংকের শেয়ার ১০ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ২৫ শতাংশ করা হবে।

 

এসব উদ্যোগের ফলে বাজারে কী প্রভাব পড়বে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘মার্কেটের ওপর কি ইমপ্যাক্ট হবে, আমি বলতে পারব না। আমাদের কাজটি হচ্ছে সহায়ক ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়ে বাজারের সহায়ক জায়গাগুলোতে সাপোর্ট দেওয়া। বাজার কীভাবে উঠবে না নামবে তা সরকারের হাতে নেই।

 

অর্থমন্ত্রী আরও বলেন, ‘পুঁজিবাজের প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বাড়াতে সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোকে বাজারে আনা হচ্ছে। সাতটি প্রতিষ্ঠান ঠিক করা হয়েছে, যার মধ্যে দুটি বাজারে তালিকাভুক্ত হয়ে আছে।

 

বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব আসাদুল ইসলাম, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক এম খায়রুল হোসেন, অর্থ সচিব আবদুর রউফ তালুকদার, ইনভেস্টমেন্ট কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের (আইসিবি) ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং ব্যাংকগুলোর চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা সেখানে ছিলেন।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Follow us

আর্কাইভ

February 2024
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
26272829