খালেদা জিয়াকে মুক্ত ও গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার শপথ নিয়েছেন মির্জা ফখরুল

প্রকাশিত: ৭:০৮ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০

খালেদা জিয়াকে মুক্ত ও গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার শপথ নিয়েছেন মির্জা ফখরুল
Spread the love

Views

লন্ডন বাংলা ডেস্কঃঃ

বিএনপি মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের এই দিনে চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মুক্ত ও গণতন্ত্রকে পুনঃপ্রতিষ্ঠা করার শপথ নিয়েছে বলে জানিয়েছেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ শুক্রবার সকালে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ভাষা শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ নিবেদন শেষে বিএনপি মহাসচিব এ কথা বলেন।

 

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমরা অত্যন্ত দুঃখের সঙ্গে এই মহান দিবসে বলতে বাধ্য হচ্ছি, আজকে দেশে গণতন্ত্র নেই্, আজকে দেশের মানুষের অধিকার হরণ করা হয়েছে এবং আইনের শাসন নেই। এখানে কোনো ন্যায় বিচার নেই। আজকের এই দিনে আমরা শপথ নিচ্ছি যে, এদেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করব এবং দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করব ইনশাল্লাহ।

 

কারাবন্দী দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির প্রসঙ্গ টেনে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘দুর্ভাগ্য আমাদের, যেই গণতান্ত্রিক চেতনার ওপর ভিত্তি করে এই রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল, সেই গণতান্ত্রিক আন্দোলনের যিনি মাতা গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের জন্য যিনি সংগ্রাম করেছেন সেই দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে আজকে বেআইনিভাবে সাজা দিয়ে তাকে কারাগারে আটক করে রাখা হয়েছে। এদেশের সংবিধান অনুযায়ী যা তার ন্যুনতম প্রাপ্য জামিন, সেই জামিনও তাকে দেওয়া হচ্ছে না।

 

ভাষা আন্দোলনের পটভূমি তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘এই ভাষা আন্দোলনের ওপর ভিত্তি করে আমরা মুক্তিযুদ্ধ করেছি, স্বাধীন একটি ভু-খণ্ড তৈরি হয়েছে, আমরা একটি পতাকা পেয়েছি। দুর্ভাগ্যের বিষয় যে চেতনাকে ভিত্তি করে সেদিন বায়ান্নর ভাষা আন্দোলন হয়েছিল, স্বাধীনতা যুদ্ধ হয়েছিল, মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিল, সেই গণতান্ত্রিক চেতনা আজকে ৬৮ বছর পরেও নিশ্চিত হয়নি। বর্তমান দখলদার সরকার জনগণের সমস্ত অধিকারগুলো হরণ করে। ভোটের অধিকার হরণ করে, তাদের বেঁচে থাকবার অধিকার হরণ করে গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে ধ্বংস করে দিয়ে একদলীয় একটি রাষ্ট্র ব্যবস্থা তারা তৈরি করবার জন্য সবরকমের অপকৌশল করছে।

 

এর আগে সকাল সাড়ে ৬টায় বলাকা সিনেমা হলের কাছে সমবেত হয়ে বিএনপি মহাসচিবের নেতৃত্বে নেতাকর্মীরা প্রথমে আজিমপুর কবরস্থানে ভাষা শহীদদের কবর জিয়ারত করেন। এরপর প্রভাত ফেরি করে সকাল সাড়ে ৮টায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

 

এ সময়ে দলের চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিল সদস্য আবুল খায়ের ভুঁইয়া, আবদুস সালাম, হাবিবুর রহমান হাবিব, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, হাবিব উন নবী খান সোহেল, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, কেন্দ্রীয় নেতা শামা ওবায়েদ, মীর নেওয়াজ আলী নেওয়াজ, শামীমুর রহমান শামীম, সেলিম রেজা হাবিব, যুব দলের সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশনর অধ্যাপক হারুন আল রশিদ, অধ্যাপক আব্দুস সালাম, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদির ভুঁইয়া জুয়েল, জাসাস সালাউদ্দিন ভুঁইয়া শিশির, শায়রুল কবির খান, জাকির হোসেন রোকন এবং সদ্য সমাপ্ত ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ধানের শীষের প্রার্থী তাবিথ আউয়াল ও ইশরাক হোসেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নেতা অধ্যাপক এবিএম ওবায়দুল ইসলাম, অধ্যাপক মোর্শেদ হাসান খান, অধ্যাপক লুৎফুর রহমান, অধ্যাপক সিদ্দিকুর রহমানসহ বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।


Spread the love

Follow us

আর্কাইভ

January 2022
M T W T F S S
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31