লঞ্চের কেবিনে প্রেমিকাকে ধর্ষণ করলো প্রেমিক

প্রকাশিত: ৮:৩৫ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২৩, ২০২০

লঞ্চের কেবিনে প্রেমিকাকে ধর্ষণ করলো প্রেমিক
২০২ Views

 

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জঃ

লঞ্চে করে বেড়াতে নেয়ার কথা বলে লঞ্চের কেবিনে  এক কিশোরীকে (১৭) একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগে প্রেমিক সালাউদ্দিন (৩০) নামে একজনকে  গ্রেফতার করেছে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। সালাউদ্দিন চাঁদপুর পৌরসভার উত্তর জিটি রোডের সিদ্দিক আলীর ছেলে। সে ফতুল্লার আমতলা প্রেম রোড এলাকার বাবুল মিয়ার বাড়িতে ভাড়া থেকে ফতুল্লায় ঝুটের ব্যবসা করতো বলে জানা গেছে।

 

 

গ্রেফতারকৃতকে  বুধবার আদালতে প্রেরণ করে পুলিশ। এর আগে গত মঙ্গলবার দিবাগত রাতে ভুক্তভোগী ওই কিশোরী বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করলে রাতেই পুলিশ অভিযুক্ত সালাউদ্দিনকে আটক করে।

 

 

ভুক্তভুগী কিশোরী জানান,  ফতুল্লার এনায়েতনগর এলাকার একটি হোসিয়ারীতে কাজ করতো েসে এবং  সেখানে সালাউদ্দিনের সাথে  পরিচয় হয় তার। এরপর বিগত ৩ বছর ধরেতাদের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এরই মধ্যে বিয়ের কথাও হয় প্রেমিকের সাথে তার। তিনি আরও জানায়, গত ১১ জানুয়ারি সকালে ফতুল্লার পঞ্চবটি বাসস্ট্যান্ডে তাকে তার প্রেমিক  তাকে আসতে বলে। এরপর সেখান থেকে কৌশলে তাকে অপহরণ করে ঢাকার সদরঘাট এলাকায় নিয়ে যায়। কিশোরী লঞ্চে উঠতে গড়িমসি করলে প্রেমিক আশ্বাস দেয় গ্রামের বাড়িতে নিয়ে গিয়ে তাকে বিয়ে করবে। এরপর চাঁদপুরগামী একটি লঞ্চের কেবিনে নিয়ে তাকে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে চাঁদপুর থেকে ফিরে আসার পথেও সালাউদ্দিন তাকে পুনরায় যৌন নির্যাতন করে। বিকেলে তাকে সাইনবোর্ড এলাকায় রেখে সালাউদ্দিন তার বাসায় চলে যায়। ঘটনার পর একাধিকবার সালাউদ্দিনকে ফোন করা হলেও সে তার মোবাইল ফোন রিসিভ করেনি।

 

 

এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো.আসলাম হোসেন জানান, নির্যাতিত কিশোরী মঙ্গলবার রাতে একটি লিখিত অভিযোগ দিলে অভিযুক্তকে রাতেই প্রথমে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত সালাউদ্দিন কিশোরীকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করে। তার বিরুদ্ধে নারী নির্যাতন আইনে মামলা নিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Spread the love

Follow us

আর্কাইভ

March 2024
M T W T F S S
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031